শনিবার, ১৯ অক্টোবর ,২০১৯

Bangla Version
  
SHARE

বৃহস্পতিবার, ৩০ মে, ২০১৯, ০৮:৩৪:১৭

নোয়াখালীতে বসত ঘরে ধর্ষণের শিকার গৃহবধূ

নোয়াখালীতে বসত ঘরে ধর্ষণের শিকার গৃহবধূ

ঢাকা: পুলিশ ভিকটিমকে উদ্ধার করে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেছে। জানা যায়, উপজেলার চানন্দী ইউনিয়নের চর আমানতপুর গ্রামে বাবার বাড়িতে বেড়াতে আসে পার্শ্ববর্তী গ্রামের আশিক উল্লার স্ত্রী (২৩)।

নোয়াখালীতে এক গৃহবধূ ধর্ষণের পর সপ্তাহ যেতে না যেতে আবারও এক গৃহবধূ গণধর্ষণের শিকার হয়েছেন। গত বুধবার রাত ২টায় নোয়াখালীর হাতিয়া উপজেলায় ৩ সন্তানের জননী ওই গৃহবধূকে গণধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।  

পুলিশ ভিকটিমকে উদ্ধার করে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেছে। জানা যায়, উপজেলার চানন্দী ইউনিয়নের চর আমানতপুর গ্রামে বাবার বাড়িতে বেড়াতে আসে পার্শ্ববর্তী গ্রামের আশিক উল্লার স্ত্রী (২৩)।

নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ভিকটিম জানান, রাত ২টায় একই গ্রামের সাবউদ্দিন, জামাল মাঝি ও আলমগীর তার বাবার বসত ঘরে প্রবেশ করে। এ সময় ঘরে কোন পুরুষ মানুষ ছিল না। প্রথমে তাদের সাথে ধস্তাধস্তি হয়। পরে তাকে মারধর করে পালাক্রমে গণধর্ষণ করে চলে যায় সন্ত্রাসীরা। মোরশেদ নগর পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের পুলিশ তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।

হাতিয়া থানার ওসি আবুল খায়ের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ব্যাপারে মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক নাঈমা জানান, গৃহবধূকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার চিকিৎসা চলছে।

 

এই বিভাগের আরও খবর

  টেম্পুর হেলপার থেকে ৩০০০ কোটি টাকার মালিক মাদক সম্রাট মাসুদ

  ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী অন্তঃসত্ত্বা, মা ও সৎবাবা আটক

  রাতে নৌকা ভ্রমণে গিয়ে ‘অনৈতিক কাজ’, ৫ তরুণীসহ আটক ১২

  অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূকে অস্ত্রের মুখে গণধর্ষণ

  বিদ্যালয়ের কক্ষে নিয়ে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ করল দপ্তরি

  আনোয়ারায় ঘুষের টাকাসহ সার্ভেয়ার আটক

  প্রবাসীর স্ত্রীর সঙ্গে হোটেলে রাত কাটিয়ে হাতেনাতে ধরা কনস্টেবল

  ‘বান্ধবীর অ্যাকাউন্টে’ ঘুষের অর্ধকোটি টাকা, তোপের মুখে সওজ কর্মকতা

  ঘুষের টাকাসহ গ্রেফতার নৌ-পরিবহনের সার্ভেয়ার কারাগারে

  ধর্ষণে সন্তানের মা হলেন ১০ বছরের শিশু

  স্বাক্ষর জালিয়াতি: ৩৫ লাখ টাকার চেক তুলতে গিয়ে ২ পুলিশ আটক

আজকের প্রশ্ন

বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেছেন, পুলিশের ওপর নির্বাচন কমিশনের কোনো নিয়ন্ত্রণ নেই। আপনিও কি তা-ই মনে করেন?