রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

বুধবার, ০২ মে, ২০১৮, ১১:০৫:১১

‘পরিচালক আমাকে ‘নাইটি’ পরে কাছে যেতে বলেছিল’

‘পরিচালক আমাকে ‘নাইটি’ পরে কাছে যেতে বলেছিল’

যৌন হয়রানি নিয়ে বলিউড অভিনেত্রীদের খোলামেলা স্বীকারোক্তি নতুন নয়। অতীতে, বর্তমানে বহুবারই শোনা গেছে এমন নানা স্ক্যান্ডাল। রাধিকা আপ্তে, শ্রীরেড্ডি, রিচা চাড্ডা সহ অনেকেই বলিপাড়ার ‘কাস্টিং কাউস’ নিয়ে সরাসরি কথা বলেছেন। জানিয়েছেন অনেক চাঞ্চল্যকর অভিজ্ঞতার কথা। 

এবার অভিনয় করতে গিয়ে যৌন হয়রানির কথা ফাঁস করলেন ‘সাহেব বিবি আউর গ্যাংস্টার’ অভিনেত্রী মাহি গিল। জানালেন অজানা অনেক তথ্য।

মাহির ভাষায়, তাকে কেউ সালোয়াড় কামিজ পড়া অবস্থায় সিনেমায় অভিনয়ে নিতে চাইতো না। পরিচালক তাকে ‘নাইটি’ পরে তার কাছে যেতে বলেছিল। ক্যামেরার সামনেও নাইটি পরে দাঁড়াতে বলেছিল। পরিচালক তাকে নাইটি পরা অবস্থায় দেখতে চেয়েছিল।   

তবে তাৎক্ষণিক কোনও পরিচালকের নাম উচ্চারণ করেননি নায়িকা। জাস্ট বলেন- ‘এখন নাম মনে পড়ছে না।’ 



মাহি গিল বলেন, ‘মেয়েদের দেখলেই যারা ওই ধরনের কুত্সিত ভাবনা-চিন্তা শুরু করে দেন, তারা সমাজের সব জায়গাতেই বহাল তবিয়তে ঘুরে বেড়াচ্ছেন।’

সম্প্রতি ‘কাস্টিং কাউস’কে ধর্ষণের সামিল বলে মন্তব্য করেন বলিউডের জনপ্রিয় করিওগ্রাফার সরোজ খান। 

সংবাদ সংস্থা এএনআই-কে দেয়া এক সাক্ষাতকারে সরোজ খান বলেন, ‘কাস্টিং কাউচ-এর মত ঘটনা সেই ‘বাবা আজমের’ যুগ থেকে চলে আসছে। সব জায়গাতেই মেয়েদের ওপর কারও না কারও নজর থাকে। সে সরকারি কোনও কাজের জায়গা হোক, বা অন্য কোথাও। কিন্তু, সবাই সবক্ষেত্রে বলিউডকেই কাঠগড়ায় তোলে। কেন সবাই সব সময় বলিউডকে দোষ দেয়? বলিউড আমাদের পেটের ভাত যোগায়, তাই ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি আমাদের ‘বাবা-মা’।’

আজকের প্রশ্ন

সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন ‘খালেদা জিয়ার শারীরিক অসুস্থতা নিয়ে বিএনপির নেতারা মিথ্যাচার ও বিভ্রান্তি করছে। আপনিও কি তাই মনে করেন?