বুধবার, ২১ নভেম্বর ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

বৃহস্পতিবার, ১৮ অক্টোবর, ২০১৮, ০৭:৪৩:০২

২৩ পদে নিয়োগ সরকারি প্রতিষ্ঠানে

২৩ পদে নিয়োগ সরকারি প্রতিষ্ঠানে

ঢাকা : জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, রাজশাহী ও এর অধীনস্থ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়সমূহে নিন্মবর্ণিত শূন্য পদসমূহে অস্থায়ী ভিত্তিতে নিয়োগ দেবে। রাহশাহীর জেলার স্থায়ী বাসিন্দাদের থেকে জনপ্রশাসন বরাবর আবেদন ফরমে দরখাস্ত আহ্বান করা হয়েছে।

পদের নাম ও সংখ্যা:

০১. সাঁটলিপিকার কাম কম্পিউটার অপারেটর, পদের সংখ্যা: ১টি, বেতন: ১১,০০০-২৬,৫৯০/- (গ্রেড-১৩)

যোগ্যতা:

ক. এইসএসসি/ সমমান

খ. সাঁটলিপিতে প্রতি মিনিটে বাংলায় ৫০ ও ইংরেজিতে ৮০ শব্দের গতি থাকতে হবে।

গ. কম্পিউটারে Word processing, Data entry, Typing -এ মিনিটে বাংলায় ২৫ ও ইংরেজিতে ৩০ শব্দের গতি থাকতে হবে।

০২. সাঁটমুদ্রাক্ষরিক কাম কম্পিউটার অপারেটর, পদের সংখ্যা ৬ টি, বেতন: ১০,২০০-২৪,৬৮০/- (গ্রেড-১৪)

যোগ্যতা

ক. এইসএসসি/ সমমান

খ. সাঁটলিপিতে প্রতি মিনিটে বাংলায় ৫০ ও ইংরেজিতে ৮০ শব্দের গতি থাকতে হবে।

গ. কম্পিউটারে Word processing, Data entry, Typing -এ মিনিটে বাংলায় ২৫ ও ইংরেজিতে ৩০ শব্দের গতি থাকতে হবে।

০৩. অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক , পদের সংখ্যা ৬ টি, বেতন: ৯,৩০০-২২৪৯০/- (গ্রেড-১৬)

যোগ্যতা:

ক. এইসএসসি/ সমমান

গ. কম্পিউটারে Word processing, Data entry, Typing -এ মিনিটে বাংলায় ২৫ ও ইংরেজিতে ৩০ শব্দের গতি থাকতে হবে।

০৪. লাইব্রেরী সহকারী, পদের সংখ্যা ১টি, বেতন: ৯,৩০০-২২,৪৯০/- (গ্রেড-১৬)

যোগ্যতা: কোন স্বীকৃত বোর্ড হতে এইসএসসি/ সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ।

০৫. একাউন্টেন্ট ক্লার্ক, পদের সংখ্যা ৬টি, বেতন: ৯,৩০০-২২,৪৯০/- (গ্রেড-১৬)

যোগ্যতা: কোন স্বীকৃত বোর্ড হতে এইসএসসি/ সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ।

০৬. সার্টিফিকেইট সহকারী, পদের সংখ্যা ৩টি, বেতন: ৯,৩০০-২২,৪৯০/- (গ্রেড-১৬)

যোগ্যতা: কোন স্বীকৃত বোর্ড হতে এইসএসসি/ সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ।

নির্ধারিত আবেদন ফরম এবং প্রবেশপত্র রাজশাহী জেলার ওয়েব www.rajshahi.gov.bd তে এবং এ কার্যালয়ের সংস্থাপন শাখায় পওিয়া যাবে।

আবেদনের সময়সীমা:

আগ্রহী প্রার্থীকে অবশ্যই আগামি ১১ নভেম্বর ২০১৮ তারিখের মধ্যে অফিস চলাকালীন সময়ে জেলা প্রশাসক, রাজশাহীতে পাঠাতে হবে।

আজকের প্রশ্ন

সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন ‘খালেদা জিয়ার শারীরিক অসুস্থতা নিয়ে বিএনপির নেতারা মিথ্যাচার ও বিভ্রান্তি করছে। আপনিও কি তাই মনে করেন?