বৃহস্পতিবার, ২৩ জানুয়ারী ,২০২০

Bangla Version
  
SHARE

শুক্রবার, ১৯ জুলাই, ২০১৯, ০৭:০১:০৮

চট্টগ্রামে সমাবেশ ঘিরে ব্যাপক প্রস্তুতি

চট্টগ্রামে সমাবেশ ঘিরে ব্যাপক প্রস্তুতি

ঢাকা : আলোচিত-সমালোচিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মাঠের কর্মসূচিতে নেমেছে বিএনপি। কারাবন্দি দলের চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে বরিশালে বিভাগীয় সমাবেশের পর আগামীকাল শনিবার চট্টগ্রামে সমাবেশ করবে বিএনপি।

পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী, ২০ জুলাই (শনিবার) লালদীঘি মাঠ সংলগ্ন জেলা পরিষদ চত্বর কিংবা কাজীর দেউড়ি মোড়ের এই সমাবেশ ঘিরে ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে দলটি। পুলিশের কাছে এজন্য আবেদন করলেও শুক্রবার পর্যন্তও অনুমতি পায়নি দলটি। বিএনপি অপেক্ষায় রয়েছে প্রশাসনের অনুমতির। প্রশাসন তাদের শান্তিপূর্ণ সমাবেশ সফল করতে সার্বিক সহযোগিতা করবেন বলে তারা আশা করছেন।

সমাবেশ ঘিরে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস-চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল নোমানসহ দলের শীর্ষ নেতার এখন চট্টগ্রামের। তারা তৃণমূলের নেতাকর্মীদের দিক-নির্দেশনা দিচ্ছেন।

সমাবেশ ঘিরে আন্দোলন সংগ্রামের ঐতিহ্যের নগরী বন্দরনগরী চট্টগ্রামসহ পুরো বিভাগের নেতাকর্মীদের মধ্যে ব্যাপক সাড়া পড়েছে। দীর্ঘদিন পর উন্মুক্ত স্থানে সমাবেশকে ঘিরে দারুণ উচ্ছ্বসিত তৃণমূলের নেতাকর্মীরা। সমাবেশ সফল করতে চট্টগ্রাম মহানগরীর প্রতিটি ওয়ার্ড ও থানা এবং বিভাগের প্রতিটি জেলা, উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে ব্যাপক প্রস্তুতি চলছে। নেতারা নিজ নিজ এলাকায় অবস্থান করে নেতাকর্মীদের সংগঠিত করার পাশাপাশি ব্যাপক গণসংযোগ করছেন।

মহানগরী এবং চট্টগ্রাম অঞ্চলের বিভিন্ন এলাকা থেকে নেতাকর্মীরা সমাবেশে যোগ দেবেন। দূরের জেলার নেতাকর্মীদের একদিন আগেই চট্টগ্রাম নগরীতে চলে আসার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। বৃহত্তর চট্টগ্রামের পাঁচ জেলার নেতাকর্মীরা বাস, ট্রাকে মিছিল নিয়ে জনসমাবেশে যোগ দেবেন।

মহানগর বিএনপির সভাপতি ডা. শাহাদাত হোসেন জানান, ‘লালদিঘীর মাঠে বন বিভাগের বৃক্ষমেলা চলছে। সেজন্য সেখানে আমরা সমাবেশ করতে পারছি না। বাকি যে দু’টি ভেন্যু আমরা নির্ধারণ করেছি, সেগুলো আমাদের লোক সমাগমের জন্য পর্যাপ্ত নয়। তারপরও আমরা সেগুলো নির্ধারণ করেছি এবং আশা করছি পুলিশ আমাদের অনুমতি দেবে।’ বলেন শাহাদাত

বিএনপির কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবুর রহমান শামীম বলেন, সমাবেশ মহাসমুদ্রে রূপ নিবে। আমাদের সব ধরনের প্রস্তুতি আমাদের আছে। সমাবেশ সফল করার জন্য বিএনপি ও অঙ্গদলের থানা, ওয়ার্ড অংঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের প্রস্তুতি নিতে বলা হয়েছে।

সমাবেশে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ বিএনপির সিনিয়র নেতারা অংশ নেবেন। এছাড়াও বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০দলীয় জোট ও জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের বেশ কয়েকজন নেতা অংশ নিতে পারেন বলে দলীয় সূত্রে জানা গেছে।

এই বিভাগের আরও খবর

  আরাফাত রহমান কোকোর পঞ্চম মৃত্যু বার্ষিকীতে যুবদলের কর্মসূচী

  সরকারি দলকে সাহায্য করার জন্যই ইভিএম আনা হয়েছে: ফখরুল

  ইভিএমে কারচুপির সুযোগ সীমাহীন, ব্যালটে ভোটের ব্যবস্থা করুন: ফখরুল

  ঢাকা উত্তর বিএনপির কাউন্সিলর প্রার্থীর ওপর হামলা

  জরুরি বৈঠক বসছে বিএনপির স্থায়ী কমিটি ও ২০ দল

  দেশটা সবার, এখানে কারও জমিদারি চলবে না: ইশরাক

  পুলিশকে যে আহবান জানালো মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেন

  খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে বিএনপির বিক্ষোভ

  ভোট দিয়ে গণনা শেষ করে বাড়ি যাবেন : আ স ম রব

  সত্যিই হামলা হলে বিষয়টি ইসির গুরুত্বের সঙ্গে দেখা উচিত: কাদের

  তাবিথের ওপর হামলা: ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ব্যবস্থা নিতে ম্যাজিস্ট্রেট-ওসিকে নির্দেশ

আজকের প্রশ্ন

ঢাকার সিটি নির্বাচনে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট হলে জনগণের রায় প্রতিফলিত হবে না বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আপনিও কি তাই মনে করেন?