মঙ্গলবার, ২৮ জানুয়ারী ,২০২০

Bangla Version
  
SHARE

রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯, ০৮:৫২:৩৭

বিজয় দিবসে আওয়ামী লীগের কর্মসূচি

বিজয় দিবসে আওয়ামী লীগের কর্মসূচি

ঢাকা: আগামীকাল ১৬ ডিসেম্বর, মহান বিজয় দিবস। দিবসটি উদযাপনে বিভিন্ন কর্মসূচি হাতে নিয়েছে ক্ষমতাসীন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে- জাতীয় পতাকা ও দলীয় পতাকা উত্তোলন, স্মৃতিসৌধে পুষ্পার্ঘ্য নিবেদন ও আলোচনা সভা ইত্যাদি।

রবিবার ( ১৫ ডিসেম্বর) আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ স্বাক্ষরিত সংবাদবিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস। বাঙালি জাতির আত্মগৌরবের দিন। ১৯৭১ সালের এই দিনে মুক্তিযুদ্ধের সর্বাধিনায়ক জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে ও আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন সরকারের অধীনে পরিচালিত দীর্ঘ ৯ মাসের রক্তক্ষয়ী মুক্তিযুদ্ধে চূড়ান্ত বিজয় অর্জনের মধ্য দিয়ে বিশ্ব-মানচিত্রে অভ্যুদ্বয় ঘটে স্বাধীন ও সার্বভৌম বাংলাদেশ রাষ্ট্রের। ৩০ লাখ শহীদের আত্মদান আর দুই লক্ষ মা-বোনের ত্যাগ-তিতিক্ষা এবং কোটি বাঙালির আত্মনিবেদন ও গৌরবগাঁথা গণবীরত্বে পরাধীনতার অভিশাপ থেকে মুক্তি পায় বাঙালি জাতি।

১৬ ডিসেম্বর বীর বাঙালির বিজয় দিবস ও বাংলাদেশের জাতীয় দিবস। আওয়ামী লীগ বাংলাদেশের সকল দেশপ্রেমিক মানুষের সাথে একাত্ম হয়ে বরাবরের মতো এবারও যথাযথ মর্যাদা ও ভাবগাম্ভীর এবং উৎসব মুখর পরিবেশে মহান বিজয় দিবস উদযাপন করবে।

১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে আওয়ামী লীগ বিস্তারিত কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে- সূর্যোদয় ক্ষণে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে, বঙ্গবন্ধু ভবন ও দেশব্যাপী সংগঠনের কার্যালয়ে জাতীয় পতাকা ও দলীয় পতাকা উত্তোলন। সকাল ৬টা ৩৪ মিনিটে সাভার জাতীয় স্মৃতিসৌধে পুষ্পার্ঘ্য নিবেদন। (মহামান্য রাষ্ট্রপতি ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর রাষ্ট্রীয় কর্মসূচির সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে) সকাল ৮টা মিনিটে বঙ্গবন্ধু ভবনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন। সকাল ১০টায় টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন, জিয়ারত, দোয়া ও মিলাদ মাহফিল।

১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায়ও কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। সকাল ১১টায় গোপালগঞ্জের ঐতিহাসিক টুঙ্গিপাড়ায় অনুষ্ঠিতব্য কেন্দ্রীয় কর্মসূচিতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য লে. কর্নেল (অব.) মুহাম্মদ ফারুক খান, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সদস্য আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক আলহাজ্ব অ্যাড. শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ, শ্রম ও জনশক্তি বিষয়ক সম্পাদক হাবিবুর রহমান সিরাজ প্রমুখ নেতৃবৃন্দ অংশগ্রহণ করবেন।

১৭ ডিসেম্বর বিকাল ৩টায় মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আলোচনা সভা। সভাপতিত্ব করবেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা । আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখবেন জাতীয় নেতৃবৃন্দ ও বিশিষ্ট বুদ্ধিজীবীগণ।

১৬ ডিসেম্বর বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ কর্মসূচি গ্রহণ করে সারা দেশে যথাযথ মর্যাদায় মহান বিজয় দিবস উদযাপনের জন্য আওয়ামী লীগ এবং সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মী, সমর্থক, শুভানুধ্যায়ী ও সর্বস্তরের জনগণের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানিয়েছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

এই বিভাগের আরও খবর

  ইশরাক ক্যাডার দিয়ে তাপসের কার্যালয়ে হামলা চালিয়েছে: এইচ টি ইমাম

  এটা কেমন লেভেল প্লেইং ফিল্ড: বিএনপি

  স্থানীয় নির্বাচন নিয়ে বিদেশিদের কাছে নালিশ বিধিলঙ্ঘন : তথ্যমন্ত্রী

  মাহবুব তালুকদার ঘরের বিষয় বাইরে নিয়ে আসছেন: কাদের

  বিএসএমএমইউ’র বক্তব্য ‘মনগড়া ও পরিকল্পিত মিথ্যাচার’: রিজভী

  ইভিএমে কারচুপির আশঙ্কা রয়েছে, বিদেশি কূটনীতিকদের বিএনপি

  ভালো নির্বাচনের দৃষ্টান্ত নেই ইসির: দুদু

  ইশরাকের প্রচারণায় হামলাকারীদের শাস্তি চান তা‌বিথ

  হামলা করে আ.লীগ নির্বাচন বাঞ্চালের ষড়যন্ত্র করছে: ইশরাক

  ইশরাক বাবা-চাচার অভিজ্ঞতা কাজে লাগাবে: মির্জা আব্বাস

  ১ তারিখের আগেই কেন্দ্র পাহারা ও প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে: খসরু

আজকের প্রশ্ন

ঢাকার সিটি নির্বাচনে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট হলে জনগণের রায় প্রতিফলিত হবে না বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আপনিও কি তাই মনে করেন?