Timesofbangla.com
‘সরকার সব জানতো, পুলিশ সব জানতো- এতদিন কিছু করেনি কেন?’
Friday, 20 Sep 2019 10:41 am
Reporter :
Timesofbangla.com

Timesofbangla.com

ঢাকা : রাজধানীর ফকিরাপুলে জুয়ার ক্যাসিনো ইয়ংমেনস্ ক্লাবের গভর্নিং বডির চেয়ারম্যান হিসেবে স্থানীয় সংসদ সদস্য রাশেদ খান মেননের নাম আসার পর এ ব্যাপারে তিনি নিজেই মুখ খুলেছেন। গত বুধবার বিকেলে ওই ক্যাসিনোতে অভিযান চালিয়ে ১৪২ জনকে আটক করে র‌্যাব। জব্দ করা হয় নগদ অর্থ, অস্ত্র ও মাদকদ্রব্য।

এ বিষয়ে আত্মপক্ষ সমর্থন করে মেনন সাংবাদিকদের বলেন, ‘ক্যাসিনো সম্পর্কে আমি কিছুই জানতাম না। ক্যাসিনো চলছে কিনা তা দেখভাল করা গর্ভনিং বডির চেয়ারম্যানেরর দায়িত্বের মধ্যে পড়ে না।’

তিনি আরও বলেন, ‘ক্লাবের ভেতরে জুয়াখেলার বিষয়ে সরকার আগে থেকেই জানে। পুলিশও জানতো। পুলিশ তো এটা ভালো করেই জানে। তারা এতদিন কিছু করেনি কেন? এতদিন পর এখন এই অভিযান কেন?’

নিজের অবস্থান ও দায়িত্ব ব্যাখ্যা করে মেনন বলেন, ‘আমি এলাকার সংসদ সদস্য। আমাকে ইয়ংমেনস ক্লাবের গভর্নিং বডির চেয়ারম্যান বানানো হয়েছিল। তবে কোন এলাকার কোথায় কী ঘটছে তার খবর রাখার দায়িত্ব কিন্তু পুলিশের, একজন সংসদ সদস্যের নয়।’

ওই ইয়ংমেনস ক্যাসিনো সম্পর্কে মেনন আরও বলেন, ‘আমি জানি তাদের ফুটবল টিম আছে। তাদের ক্রিকেট টিম আছে। একদিন ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আমাকে সেখানে নিয়ে গিয়ে বলে- ‘আপনি ক্লাবের চেয়ারম্যান থাকবেন’। আমিও কোনও কিছুই না ভেবে বললাম, ঠিক আছে। ব্যস ওইটুকুই। এর পর আমি আর কখনোই ওই ক্যাসিনোতে যাইনি। জুয়ার আসর বসা নিয়ে কিছু জানতামও না।’

ইয়ংমেনস ক্লাবটিতে অভিযান চালানোর ঘণ্টা তিনেক পরই ক্লাবটির মালিক ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাকদক খালেদ মাহমুদ ভুঁইয়াকে গুলশান-২ এলাকার নিজ বাসা থেকে আটক করে র‌্যাব। ওই রাতে রাতভর কাকরাইলে মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি ইসমাইল হোসেন সম্রাটকে গ্রেফতার আতঙ্কে পাহারা দিয়ে রাখে সহস্রাধিক নেতাকর্মী। গতকাল বৃহস্পতিবার ‘ক্যাসিনো খালেদকে’ ৭ দিনের রিমান্ডে নেয়া হয়েছে।