মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ,২০২০

Bangla Version
  
SHARE

রবিবার, ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ১০:৩৫:৪৭

মোবাইল ফোনে থাকা কোরআন তিলাওয়াত করতে অজু লাগবে?

মোবাইল ফোনে থাকা কোরআন তিলাওয়াত করতে অজু লাগবে?

ঢাকা : নামাজ, রোজা, হজ, জাকাত, পরিবার, সমাজসহ জীবনঘনিষ্ঠ ইসলামবিষয়ক প্রশ্নোত্তর অনুষ্ঠান ‘আপনার জিজ্ঞাসা’। জয়নুল আবেদীন আজাদের উপস্থাপনায় জনপ্রিয় এ অনুষ্ঠানে দর্শকের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন বিশিষ্ট আলেম ড. মুহাম্মদ সাইফুল্লাহ।

আপনার জিজ্ঞাসার ২৫৪৮তম পর্বে অজু ছাড়া মোবাইল ফোনে বা ডিভাইসে থাকা কোরআন তিলাওয়াত করা যাবে কি না, সে বিষয়ে ঢাকা থেকে ই-মেইলে জানতে চেয়েছেন আমজাদ হোসেন। অনুলিখন করেছেন জান্নাত আরা পাপিয়া।

প্রশ্ন : শুনেছি অজু না থাকলেও মোবাইল দেখে কোরআন তিলাওয়াত করা যায়, এ কথা কি ঠিক?

উত্তর : অজু না থাকলেও কোরআন তিলাওয়াত করতে পারবেন। তবে কোরআনুল কারিম আল্লাহর কালাম, আল্লাহর বাণী, এটা কোনো সাধারণ বই নয়। এটি আল্লাহর সত্তার সঙ্গে সম্পৃক্ত। তাই এর যে মর্যাদা আছে, এর আদব উপলব্ধি করা প্রত্যেক মুসলিমের জন্য অপরিহার্য। অন্ততপক্ষে অজু অবস্থায় তিলাওয়াত করতে হবে। কিন্তু কোনো কারণে যদি কোরআন তিলাওয়াত করার প্রয়োজন দেখা দেয় আর এই মুহূর্তে অজু করার তার কোনো ব্যবস্থাও নেই, তাহলে তিনি অজু ছাড়াও কোরআনুল কারিম তিলাওয়াত করতে পারবেন। এই অবস্থায় তাঁর জন্য কোরআন তিলাওয়াত করা জায়েজ রয়েছে, এই মর্মে একদল ওলামায়ে কেরাম ফতোয়া দিয়েছেন।

এর পরের মাসয়ালা হলো, মোবাইল বা অন্য কোনো ডিভাইসের মধ্যে কোরআনুল কারিম থাকলে তিলাওয়াত অজু ছাড়া করা যাবে কি না। কোরআনুল কারিম তিলাওয়াতের মূল বিষয়টি অজুর সঙ্গে যুক্ত। সুতরাং, অজু করাই হলো আদব। কোরআন যদি ডিভাইসের মধ্যে থাকে, তাহলে সেই ডিভাইস স্পর্শ করার জন্য অজু করা আপনার জন্য শর্ত নয়। তিলাওয়াতে জন্য অজু করা অবশ্যই সুন্নাহ।

আজকের প্রশ্ন

বিএনপির নেতারা আইন না বুঝেই মন্তব্য করে আইনমন্ত্রীর এমন বক্তব্যে আপনি কি একমত?