বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ,২০২০

Bangla Version
  
SHARE

রবিবার, ২৫ অক্টোবর, ২০২০, ১২:৪৫:৫৬

কালোজিরা কেন খাবেন

কালোজিরা কেন খাবেন

লাইফস্টাইল ডেস্ক: কালোজিরা, এটিকে সব রোগের মহাঔষধ বলা হয়। কেননা কালোজিরায় এমন কিছু উপাদান রয়েছে যা ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, একজিমা ও এলার্জিসহ বিভিন্ন রোগ নিয়ন্ত্রণে রাখে। এছাড়া কালোজিরায় ভিটামিন, স্ফটিকল নাইজেলোন, অ্যামিনো অ্যাসিড, স্যাপোনিন, ক্রুড ফাইবার, প্রোটিন, ফ্যাটি অ্যাসিডের মতো লিনোলেনিক, ওলিক অ্যাসিড, উদ্বায়ী তেল, আয়রন, সোডিয়াম, পটাশিয়াম ও ক্যালসিয়াম রয়েছে। যা স্বাস্থ্যের জন্য খুব উপকারী। আসুন এ পর্বে জেনে নেই কালোজিরার কিছু উপকারীতা সম্পর্কে।

ডায়াবেটিস
বর্তমানে অনেকেই ডায়াবেটিসে ভুগছেন। এটি একটি বিপজ্জনক রোগে পরিণত হয়েছে। এ রোগ থেকে পরিত্রাণ পেতে অনেকে অনেক কৌলশ অবলম্বন করছেন। আবার অনেকে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রেণে খাদ্য তালিকায় কালোজিরা রাখেন। কেননা কালোজিরার তেল ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখতে সহায়তা করে। প্রতিদিন এক কাপ চায়ের সঙ্গে আধা চা চামন তেল মিশিয়ে পান করুন। তাহলে বেশ উপকৃত হবেন।

ডায়েট
অনেকে ডায়েটের জন্য কালোজিরা খেয়ে থাকেন। আর এটি বেশ কার্যকারী ডায়েটের জন্য। কালোজিরা রুটি ও তরকারিতে ব্যবহার করে খেতে পারেন। আবার মধু ও পানির সঙ্গে মিশিয়ে খেতে পারেন। এছাড়া ওটমিল ও টক দইয়ের সঙ্গে মিশিয়ে কালোজিরা খাওয়া যায়।

ত্বকের সমস্যা দূর করতে
কালোজিরা খাওয়ার ফলে ত্বকে কোনও সমস্যা থাকলে, তা দূর করে দেয়। লেবুর রসের সঙ্গে কালোজিরার তেল মিশিয়ে মুখে লাগাতে পারেন। ফলে ত্বকে ব্রণ ও দাগ অদৃশ্য হয়ে যাবে।

এছাড়া কালোজিরা তেল মাথাব্যথার জন্য একটি পুরানো ঘরোয়া প্রতিকার হিসেবে বলা হয়। এটি মাথার ত্বকের ম্যাসাজ করুন।

কালোজিরার তেল ও সরিষার তেল একসঙ্গে মিশিয়ে গরম করে হাটুতে বা শরীরের অন্যান্য জয়েন্টগুলোতে ম্যাসেজ করতে পারেন। এতে বেশ উপকৃত হবেন।

লিভার ও কিডনি ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা করতে কালোজিরা কার্যকরী ভূমিকা পালন করে। কেননা কালোজিরায় অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট থাকায়, প্রদাহ, অক্সিডেটিভ স্ট্রেস হ্রাস করার ক্ষমতাসহ লিভারকে সুরক্ষিত করতে সহায়তা করে। এছাড়া রাসায়নিকের বিষাক্ততা কমাতে পারে কালোজিরা।

কালোজিরা খেলে শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী হয়। এছাড়া নিয়মিত কালোজিরা খেলে শরীরের প্রতিটি অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ সতেজ থাকে।

কেউ হাঁপানি ও শ্বাসকষ্ট জনিত সমস্যায় ভুগলে খাদ্য তালিকায় কালোজিরা রাখেন। এতে বেশ উপকৃত হবে। প্রতিদিন কালোজিরার ভর্তা রাখুন। হাঁপানি বা শ্বাসকষ্ট জনিত সমস্যা থাকলে দূর হবে।

সর্দি-কাশি হলে এক চা চামচ কালোজিরার তেলের সঙ্গে ১ চা চামচ মধু বা এক কাপ লাল চায়ের সঙ্গে আধা চা চামচ কালোজিরার তেল মিশিয়ে দিনে তিনবার খান। বেশ উপকৃত হবেন।

স্মৃতি শক্তি বৃদ্ধিতেও কালোজিরা বেশ কার্যকরী ভূমিকা রাখে। কেননা নিয়মিত কালোজিরা খেলে দেহে রক্ত সঞ্চালন ঠিকমতো হয়।

যেসব মায়েদের বুকে পর্যাপ্ত দুধ নেই, তাদের জন্য কালোজিরা মহৌষধ। প্রসূতি মায়েরা প্রতি রাতে শোয়ার আগে ৫-১০ গ্রাম কালোজিরা মিহি করে দুধের সাথে খেলে মাত্র ১০-১৫ দিনে দুধের প্রবাহ বেড়ে যাবে। এছাড়া এ সমস্যা সমাধানে কালোজিরা ভর্তা করে ভাতের সাথে খেলেও ভাল। এছাড়া ১ চা-চামচ কালোজিরার তেল সমপরিমাণ মধুসহ দিন ৩বার করে নিয়মিত খেলেও শতভাগ উপকার পাওয়া যায়।

চুল পড়া বন্ধ করতেও কালোজিরা খেতে পারেন। নিয়মিত কালোজিরা খেলে চুল পড়া বন্ধ হয়।

আজকের প্রশ্ন

বিএনপির নেতারা আইন না বুঝেই মন্তব্য করে আইনমন্ত্রীর এমন বক্তব্যে আপনি কি একমত?