বৃহস্পতিবার, ০১ অক্টোবর ,২০২০

Bangla Version
  
SHARE

বৃহস্পতিবার, ১৬ জানুয়ারী, ২০২০, ১০:১৬:১২

ফেনীতে গভীর রাতে ঘরে ঢুকে ৬ জনকে কুপিয়ে জখম

ফেনীতে গভীর রাতে ঘরে ঢুকে ৬ জনকে কুপিয়ে জখম

ফেনী : ফেনীর সোনাগাজীতে রাতের অন্ধকারে ঘরে ঢুকে একই পরিবারের ছয়জনকে কুপিয়ে জখম করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন।
বুধবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে সোনাগাজী বাজারসংলগ্ন পাণ্ডব বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন হেদায়েত উল্লাহ মিন্টু, নূর নাহার, মাহমুদুল হক জাবেদ, সুলতানা আক্তার, রাজিয়া সুলতানা ও মাহমুদা আক্তার। জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে জের ধরে এ হামলা হয়েছে বলে মনে করছেন স্থানীয়রা।

আহতরা জানান, পাণ্ডব বাড়ির মাহমুদুল হক জাবেদ গংদের সঙ্গে একই বাড়ির পৌর কাউন্সিলর (নুসরাত হত্যা মালায় ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি কারাবন্দি) মাকসুদ আলম ও তার ভাইদের সঙ্গে দীর্ঘদিন জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছে।

ওই বিরোধের জের ধরে বুধবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে পূর্বপরিকল্পিতভাবে মাকসুদ আলমের ভাই হেলাল উদ্দিন, মাইন উদ্দিন রুবেল, সবুজ, ভোলা মিয়া, রবিন ও ফাহাদের নেতৃত্বে ২০-২৫জন সশস্ত্র সন্ত্রাসী মাহমুদুল হকে জাবেদের ঘরের দরজা ভেঙে ভেতরে ঢুকে হামলা চালায়।

ক্ষতিগ্রস্তরা আরো জানান, সন্ত্রাসীরা হেদায়েত উল্লাহ মিন্টু, নূর নাহার, মাহমুদুল হক জাবেদ, সুলতানা আক্তার, রাজিয়া সুলতানা ও মাহমুদা আক্তারকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে ও পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। পুলিশ ও স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে সোনাগাজী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, আহতদের সবাইকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে ও পিটিয়ে জখম করা হয়েছে। এদের মধ্যে নুর নাহার ও হেদায়েতুল ইসলাম মিন্টুর অবস্থা আশঙ্কাজনক। সোনাগাজী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মঈন উদ্দিন আহমেদ গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।



আজকের প্রশ্ন