সোমবার, ২৬ অক্টোবর ,২০২০

Bangla Version
  
SHARE

শনিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ১০:২৫:৫১

নাটকীয় জয় পেল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড

নাটকীয় জয় পেল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড

স্পোর্টস ডেস্ক : স্বস্তির জয় পেলো ওলেগানার সোলশায়ার শিষ্যরা। অতিরিক্ত সময়ের নাটকীয় গোলে আলবিওনকে হারালো ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। ম্যাচজুড়ে দুর্দান্ত ফুটবল খেলেও ব্রাইটনকে হারতে হলো ৩-২ গোলে।

ম্যাচশেষে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ফুটবলারদের চওড়া হাসিটা স্বস্তির। এ আনন্দ মুক্তির। না, লিগ কিংবা কোন ট্রফি জিততে পারেনি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। এটা নিছকই একটা লিগ ম্যাচ।তারপরও, এমন উদযাপনের পেছনের কথা জানতে হলে, আপনাকে চোখ রাখতে হবে পুরো ম্যাচটিতে।

অ্যামেরিকান এক্সপ্রেস কমিউনিটি স্টেডিয়ামে শুরুর গল্পটা ছিলো একেবারে আলাদা। প্রিমিয়ার লিগের প্রথম ম্যাচে ক্রিস্টালের বিপক্ষে বিধ্বস্ত হওয়ার পর, এ ম্যাচটা জেতা ছাড়া খুব একটা বিকল্প ছিলোনা ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সামনে। তাই হয়তো, একাদশ নিয়ে কোন বাছ-বিচারে যাননি ওলে গানার। ৪-২-৩-১ ফর্মেশন নিয়ে মাঠে পগবা-ফার্নান্দেজরা।

কিন্তু কিক অফ থেকেই মাঠের নিয়ন্ত্রণ ছিলো ব্রাইটন এন্ড হোভ আলবিওনের হাতে। মাঝমাঠ থেকে ছোট ছোট পাসে গুছিয়ে উঠতে থাকে তারা। তবে ৯ মিনিটে বড় ধাক্কা খায় পটার বাহিনী। পোস্টে লেগে ফিরে আসে ট্রোসাডের গতিময় শট। এতেও অবশ্য দমেনি ব্রাইটন। ২০ মিনিটে আবারো সুযোগ এসেছিলো তাদের সামনে। কিন্তু এবার আর লাইনে রাখতে পারেননি ট্রোসাড।

একেবারে নিষ্প্রভ ছিলো অতিথিরা। একবার যাও বল নিয়ে ডি বক্সে ঢোকার সুযোগ পেয়েছিলো, সেটাও হেলায় হারান ম্যান ইউ তারকা গ্রিনউড।

প্রথমার্ধ্বের ৩৮ মিনিটে এসে ভাগ্য খুলে যায় স্বাগতিকদের। পেনাল্টি থেকে স্কোর করেন মাওপে। গোলটা যেন টনিকের মতো কাজ করে রেড ডেভিল শিবিরে। পিছিয়ে পড়ার ৪ মিনিট বাদেই ফ্রি কিক থেকে পাওয়া বলে দলকে সমতায় ফেরান ম্যানইউ অধিনায়ক ম্যাগুয়ের। যদিও, আত্মঘাতি গোল হিসেবেই বিবেচনা করা হবে সেটি।

বিরতি থেকে ফিরে গোলের নেশায় মত্ত হয়ে উঠে দুই দল। ৫০ মিনিটেই পেনাল্টি আদায় করে নেয় আলবিওন। কিন্তু প্রযুক্তি বাঁচিয়ে দেয় ইউনাইটেডকে। ৫২ মিনিটে এগিয়ে যায় সোলশায়ার শিষ্যরা। কিন্তু, মুচকি হেসে ফুটবল বিধাতা সমতায় নামিয়ে আনেন দু দলকে। তাদের গোলটাও বাতিল হয়ে যায় অফসাইড খাঁড়ায়।

তবে রাশফোর্ড ছিলেন বাঁধনহারা। কতবার আর তাকে আটকাবে রেফারি? ২ মিনিট পরেই আবারো জালে বল পাঠান এ ফরোয়ার্ড। এগিয়ে যায় রেড ডেভিল।

ম্যাচের আধিপত্য ধরে রাখতে আপ্রাণ চেষ্টা চালাতে থাকে দুই দল। কিন্তু, গোলমুখের শটগুলো ছিলো এলোমেলো।

তবে, সবকিছু বদলে যায় ম্যাচের অতিরিক্ত সময়ে। ৯৫ মিনিটে গোল করে দলকে সমতায় ফেরান মার্চ। আনন্দে ফেটে পড়ে আলবিওন শিবির। কিন্তু রেড ডেভিলদের হয়ে নিজের ৫০তম ম্যাচে সোলশায়ারকে জয় উপহার দিলেন ব্রুনো। অতিরিক্ত সময়েরও অতিরিক্ত সময়ে স্পট কিক থেকে দলের জয়সূচক গোলটি করেন এ পর্তুগীজ। ২০২০/২১ মৌসুমের প্রথম জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড।

আজকের প্রশ্ন

বিএনপির নেতারা আইন না বুঝেই মন্তব্য করে আইনমন্ত্রীর এমন বক্তব্যে আপনি কি একমত?